Storybd.com

একটি বাংলা গল্পের সাইট

আকুতি

ওর বর্তমানের বাবা ছিল চাকমা, মর্জিনাকে মেয়ের মযাদায় কাছে পাবার স্বার্থে মিথ্যে বলেছিল। ও তা বুঝেনি, ছোট বয়সে কি বা বুঝবে ও শুধু বাবার অভাব পূর্রণ করতে চেয়েছিল। ধর্মের ব্যবধানে প্রভাব পড়ে ওদের ওপর। মর্জিনার বাবা বলে জীবনের কাছে দায়বদ্ধদা থেকে গেলো বেঁচে থাকার দাগিতে মিছে মিছে পৃথিবী কেনো বানিয়েছো ।আমি কি মর্জিনার প্রতি অবিচার করছি। ও কি আমার ধর্ম মেনে নিতে কষ্ট হচ্ছে।মর্জিনা বলে বাবাগো শুনেছি বড় হতে বুদ্ধিই যথেষ্ট সাথে কর্ম। এই ঘর থাকবে আমার আপন ঘর, যতই বড় ঝড় আসুক এই ঘরে আমার মায়ের স্মৃতি, বাবার আহাজারি,কিন্তু এই সত্যটা মানতে পারেনি বাবাগো তোমার জন্য,ইতিহাস ভুলে কি করে? আমি যে একজন যোদ্ধার মেয়ে, স্বাধীন আমি পরাধীন নয়। ভুলে যেতে চাই না স্বাধীনতার নাম। মাঝে মাঝে মনের অজানতে ভাবি বাবা কি ঐ রেল লাইনের উপর পড়েছিল লাল রক্ত মাখা লাশ হয়ে,আর মায়ের কথা তো ভাবাই যায় না। মায়ের আর্তনাথের ধ্বনি, বুকে জমানো চেপে রাখা কষ্টগুলো, মাটির কোলে ঘাসের বুকে,আহাজারির শেষ ছিল না, মর্জিনা বুদ্ধিমুতি ও সাহসি হয়ে উঠে,ভাবছে কি করবে? জীবনরে জীবন, তোর কেন এতো ধরণ,নিজেকে বদলাববো কি দিয়ে? ছোট ছিলাম ভালো ছিলাম বুঝতে শিখেছি কেন? এখন যে না বুঝার ছলনা করতে পারিনা,বিবেক সাড়া দেয় সুপথে। বাবা ও মেয়ের একেক জন্যের অভাব পূর্রণ করতে মেনে নিতে হয়,বাবার ধর্মের কর্মকে। ওর বাবা মর্জিনাকে নিয়ে যায় তার বসত ভিটায়। মর্জিনাকে বলছে, এই দেখ আমার বাড়ি,তোমার পছন্দ হয়েছে? মর্জিনা একটু নারাজ! বাবা বুঝতে পেরে বলছে, পিছনের সব কিছু ভুলে যাও,এমনতো কত ঘটনা আছে অজানায়,তবু কেউ থেমে নেই,ও মুখ চেপে কান্না থামায়।বাবা মায়ের স্মৃতি তবে কি ভুলে যেতে হবে? জীবনের তরী ভাসাতে হবে অজানা পথে আপন টানে। আমাকে অন্য রুপে সাজতে হচ্ছে,এইতো পৃথিবীর নিয়ম।

।।নতুন পথে পা বাড়ালাম।।

চলবে………….

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Storybd.com © 2017
Powered By AhnafBD